৩৮ বছর বয়সী গেইলকে যে কারনে কিনতে চায়নি পাঞ্জাব!

ipl gayle

এবারের একাদশ আইপিএলের নিলামে সবচেয়ে বিস্ময়কর ব্যাপার ছিল ক্রিস গেইলের প্রতি ফ্র্যাঞ্চাইজিগুলোর অনাগ্রহ। ক্যারিবিয়ান দানবকে প্রথম দুই সুযোগে কোনো দলই কিনতে চায়নি। শেষ দিকে এসে দান মেরে দেয় কিংস ইলেভেন পাঞ্জাব। এরপর প্রথম দুই ম্যাচ তাকে একাদশের বাইরে রাখা হয়। তৃতীয় এবং চতুর্থ ম্যাচে সুযোগ পেয়েই একটি করে হাফ সেঞ্চুরি ও সেঞ্চুরি হাঁকান গেইল। কিন্তু এই গেইলকে কেন প্রথমে কিনল না পাঞ্জাব?

কিংস ইলেভেন পাঞ্জাব কোচ শেবাগের সরল স্বীকারোক্তি, কম দামে নিতেই অপেক্ষায় ছিলেন তারা। সংবাদ সম্মেলনে এক প্রশ্নের জবাবে শেবাগ বলেছেন, ‘তার মতো এন্টারটেইনার আর কেউই হবে না। এটা আসলে একটা কৌশল ছিল। কারণ আমাদের আরও খেলোয়াড় কিনতে হয়েছে। প্রথমেই তাকে নিলে আমাদের অনেক বেশি খরচ পড়ত।’

Loading...

শেবাগের বয়স ৩৯, খেলা ছেড়ে এখন তিনি কোচ। ৩৮ বছর বয়সী গেইলকে কেউ এবার কিনবে না, ধরেই রেখেছিলেন শেবাগ। গেইল অবশ্য জবাবটা ব্যাট হাতেই দিয়েছেন। সুযোগ পেয়ে প্রথম ম্যাচে ৩৩ বলে ৬৩ আর দ্বিতীয় ম্যাচে ৬৩ বলে হার না মানা ১০৪ রানের দুটি বিধ্বংসী ইনিংস খেলেছেন এই বাঁহাতি। সেঞ্চুরির ইনিংস শেষে তিনি বলেছেন, ‘লোকে ভাবে আমি বুড়ো হয়ে গেছি। কিন্তু আমাকে নতুন করে আর প্রমাণের কিছু নেই।’

তবে গেইলকে কোনো দল কিনবে না বলেই ধরে নিয়েছিলেন শেবাগ। তাই সুযোগের অপেক্ষায় ছিলেন। তার ভাষায়, ‘গত বছর সে পিঠের ব্যথার কারণে অনেকগুলো ম্যাচ মিস করেছে। কোহলিও তাকে ব্যাঙ্গালুরু একাদশে রাখেনি। আমি আশা করেছিলাম, এবার কেউ তাকে কিনবে না। কারণ তার বয়স আমার সমান। আমি ভেবেছি, যদি আমরা তাকে দলে নেই, তবে মার্কেটিংটা ভালো হবে। সবাই ক্রিস গেইলকে পছন্দ করে। এখন তো সে পাঞ্জাবের বড় সম্পদ।’

Loading...

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

*

Loading...